শবনম বুবলী ঢালিউডের ছবিতে শাকিব খান নির্ভর নায়িকা হিসেবে পরিচিত। ক্যারিয়ারে তার মুক্তিপ্রাপ্ত সব সিনেমায় শাকিব খানই ছিলেন তার নায়ক। এবং কেনই বা সেটা হবে না? শাকিব খানের হাত ধরেই তো তিনি সিনেমা জগতে পা রেখেছেন। বসগিরি সিনেমার এই সুদর্শিনী নায়িকা সবসময় বলে এসেছেন শাকিব খান সবসময় তার ভালো একজন অভিভাবক।
ঢাকাই সিনেমার এই জনপ্রিয় অভিনেত্রী প্রায় ১১ মাস মানুষের চোখের আড়া’লে ছিলেন। তিনি এই বছরের শুরুতে তার অবস্থান ঘোষণা করেছিলেন। দুই নায়ক নিরব ও রোশনের বিপরীতে বুবলি একটি নতুন ছবিতে অভিনয় করেছেন। তার অভিনীত ’চোখ’ ছবিটি মুক্তি পাবে আসছে ১লা অক্টোবর।

শাকিব ছাড়া অন্য নায়কদের সঙ্গে নিজের রসায়ন প্রসঙ্গে বুবলী গণমাধ্যমকে বলেন, ’আমি ক্যারিয়ারের শুরু থেকেই শাকিবের সঙ্গে পর পর ছবি করায় অনেক দর্শক আমাকে শাকিবের সঙ্গে দেখেই অভ্যস্ত। কিন্তু অনেকেই প্রশ্ন তুলেছিলেন, আমি কেন শাকিব ছাড়া কারও সঙ্গে কাজ করছি না। অন্য নায়কদের সঙ্গে রসায়নের ব্যাপারটা তোলা থাক, আর মাত্র তো কিছু দিনের অপেক্ষা। দর্শক হলে গিয়েই দেখবেন।’

এদিকে সিনেমা প্রসঙ্গে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে তাকে জিজ্ঞাসা করা হয়, আরব্য উপন্যাসের গল্পের মতো ’আলাদিনের চেরাগ’ পেলে সিনেমার উন্নতির জন্য কোন তিনটি ইচ্ছের কথা প্রকাশ করবেন? জবাবে বুবলী জানান, প্রথমে সিনেমার জন্য বাজেট চাইতাম। তারপর সিনিয়র-জুনিয়র সবাইকে নিয়ে বসতাম, বাজেটটা সিনেমার উন্নতির জন্য কীভাবে কাজে লাগানো যায়। সেটা হল সংস্করণ কিংবা গল্পের প্রয়োজনে হোক। আমাদের এখানে কিন্তু স্ক্রিপ্টের অভাব নেই কিন্তু প্রায়ই শুনি স্ক্রিপ্ট রাইটারদের এবং গীতিকবিদের নাকি সেভাবে টাকা দেওয়া হয় না। এমন অবস্থায় একটা ভালো গল্প কিংবা গানের কথা কীভাবে আসবে? এমন সব সমস্যার জন্য ডিপার্টমেন্ট অনুযায়ী বাজেট ভাগ করে দিতাম, যেভাবে সিনেমার উন্নতি করা করা যায়।

দ্বিতীয়ত চাইতাম, সবার মধ্যে যেন সুস্থ কাজের প্রতিযোগীতা থাকে। কারও মধ্যে যেন রে’ষারে/ষি না থাকে। কারও পিছনে কথা না বলে যেন সবাই পজিটিভভাবে কাজ নিয়ে থাকি, এই মানসিকতা যেন সবার মধ্যে দিয়ে দেয়। আর তৃতীয়ত চাইতাম, বাংলাদেশের সমস্ত ইন্টারনেট বন্ধ হয়ে যাক। বাইরের সঙ্গে সব যোগাযোগ বন্ধ হয়ে যাক, তাহলে সবাই বাংলা সিনেমা দেখবে। বাংলাদেশের সব কিছুর খবর নেবে।

প্রসঙ্গত, নির্মাতা আসিফ ইকবাল জুয়েলের বানানো প্রথম ছবি ’চোখ’। গল্পটি একটি রোমা’ঞ্চকর, কিছু ভৌতিক বিষয়ও আছে। শাপলা মিডিয়া প্রযোজিত, বুবলীকে পশ্চিমা এবং কর্পোরেট টাইপের গেটআপে দেখা যাবে।

সাম্প্রতিক সময়ে সৈকত নাসিরের ’তালা’শ’ শিরোনামের একটি সিনেমার কাজ সম্পাদন করেছেন বুবলী। ছবিটিতে এই নায়িকার সহশিল্পী হিসেবে আছেন আদর আজাদ এবং আসিফ। ছবিটির ডাবিং এখনও রয়ে গেছে। সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে ছবিটি শীঘ্রই মুক্তি পেতে যাচ্ছে। তাছাড়াও, ’লিডার আমিই বাংলাদেশ’ ছবির কাজ চলতি মাসের শেষের দিকে শেষ হবে। ’প্রতিশো’ধ’ সিনেমার কাজও প্রায় শেষ পর্যায়ে রয়েছে। অক্টোবরের শুরুর দিকে শিডিউল দিয়েছেন বুবলি। মূলত লক’ডাউনের জন্য এই সিনেমার কাজ এগোতে পারেনি।